আমরা গভীরভাবে শোকাহত
—————————————–
না ফেরার দেশে চলে গেলেন বাংলাদেশ আওয়ামী সেচ্ছাসেবক লীগের কেন্দ্রীয় সংগ্রামী সভাপতি জননেতা “নির্মল রঞ্জন গুহ” ।
পার্থিব বিয়োগে আমরা গভীরভাবে শোকাহত। বিদেহী আত্মার স্বর্গীয় শান্তি কামনা সহ শোকসন্তপ্ত পরিবার পরিজনের জানাচ্ছি  বিএম ২৪ টিভির পক্ষ থেকে গভীর সমবেদনা ।

না ফেরার দেশে চলে গেলেন বাংলাদেশ আওয়ামী সেচ্ছাসেবক লীগের কেন্দ্রীয় সংগ্রামী সভাপতি জননেতা “নির্মল রঞ্জন গুহ”।

সীতাকুণ্ডে অগ্নিতাণ্ডবে নিহত-আহতের উদ্দেশ্যে ওলামা লীগের দোয়া মাহফিল ৬ জুন ২০২২ সোমবার বাদ এ আসর জাতীয় মসজিদ বায়তুল মোকাররমে বীর চট্রলার সীতাকুণ্ডে বিএম কন্টেইনার ডিপোতে ভয়াবহ অগ্নকাণ্ডে নিহতদের রুহের মাগফিরাত ও আহতদের সুস্থতা কামনায় বাংলাদেশ আওয়ামী ওলামা লীগ কেন্দ্রীয় কমিটির দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠিত।

ওলামা লীগের কেন্দ্রীয় সভাপতি মুফতী মাসুম বিল্লাহ নাফিয়ীর সভাপতিত্বে সাধারণ সম্পাদক হাফেজ মাওলানা আনোয়ার হোসেন জুয়েলের পরিচালনায় দোয়া মাহফিলে অংশগ্রহণ করেন, বাংলাদেশ আওয়ামী যুবলীগের কেন্দ্রীয় যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক যুবনেতা বদিলউল আলম বদি, আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় অর্থ ও পরিকল্পনা বিষয়ক উপ-কমিটির সদস্য তসলিম উদ্দিন রানা, ত্রাণ ও সমাজকল্যাণ কেন্দ্রীয় উপ-কমিটির সদস্য বেলাল নূরী, ধর্ম বিষয়ক উপ-কমিটির সদস্য সালাউদ্দিন সাকিব, উপ-কমিটির সদস্য মিজানুর রহমান সরদার,হকার্স লীগের কেন্দ্রীয় আহবায়ক জাকির হোসনে হানিফ,ওলামা লীগের কার্যকরি সভাপতি মাওলানা আনোয়ার শাহ, সহ-সভাপতি হাফেজ কারী মুফতী আব্দুল আলিম বিজয়নগরী, যুগ্ন সাধারণ সম্পাদক হাফেজ মাওলানা ইদ্রিচ আলম, কৃষক লীগের কেন্দ্রীয় ধর্ম বিষয়ক সম্পাদক মোশাররফ হোসেন আলমগীর, শেখ রাসেল স্মৃতি ফাউন্ডেশনের সভাপতি সোহাগ চৌধুরী, কৃষক লীগের কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য বিষয়ক সম্পাদক ডাঃ মোঃ মুজিবুর রহমান মিয়াজী প্রমূখ।

দোয়ায় আল্লাহ সোবহানাহু তা’য়ালার দরবারে অগ্নিকাণ্ডে নিহতদের রুহের মাগফিরাত ও শোকসন্তপ্ত পরিবারের ধৈর্য ধারণ করার তৌফিক কামনা করা হয়। এছাড়াও মুনাজাতে আহতদের দ্রুত সুস্থতা কামনাসহ দেশ ও জাতির কল্যাণে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী সুস্বাস্থ্য ও নিরাপদ দীর্ঘায়ু কামনা মধ্যে দিয়ে জাতীয় মসজিদের সিনিয়র পেশ হাফেজ কারী মুফতী মিজানুর রহমান দোয়ার সমাপ্তি টানেন।

সীতাকুণ্ডে অগ্নিতাণ্ডবে নিহত-আহতের উদ্দেশ্যে ওলামা লীগের দোয়া মাহফিল

                         
বিএম ২৪ টিভির পক্ষ থেকে আন্তরিক শুভেচ্ছা ও অভিনন্দন

‘বঙ্গবন্ধু আওয়ামী আইনজীবী পরিষদ সমর্থিত -সম্মিলিত আইনজীবী সমন্বয় পরিষদ’ কর্তৃক মনোনীত সাদা প্যানেলের নিরঙ্কুশ বিজয় বাংলাদেশ বার কাউন্সিল নির্বাচনে।
সর্বমোট ১৪ টি আসনের মধ্যে ১১ টি তে আওয়ামী লীগ সমর্থীত প্রার্থীরা বিজয়ী হয়েছেন।
বাংলাদেশ বার কাউন্সিল নির্বাচন ২০২২
৭টি সাধারন আসনে ৫ টি এবং ৭ টি গ্রুপ আসনের মধ্যে ৬ টিতে তথা- ১৪টি আসনের মধ্যে ১১টি আসনে সংখ্যাগরিষ্ঠতার সহিত সাদা প্যানেল অর্থাৎ আওয়ামীপন্থী বিজ্ঞ সদস্যগণকে আগামী ৩ বছরের জন্য সদস্য পদে নির্বাচিত করেছেন সারা বাংলাদেশের সাধারণ আইনজীবীরা।
সাধারন আসন
১. সৈয়দ রেজাউর রহমান
২.মোখলেসুর রহমান বাদল
৩. সাঈদ আহমেদের রাজা
৪. রবিউল আলম বুদূ
৫. কামরুল ইসলাম ( এমপি )
গ্রুপ আসন
৫. আব্দুল বাতেন (ঢাকা)
৬. মোহাম্মদ জালাল উদ্দিন খান ( টাঙ্গাইল/ফরিদপুর/ময়মনসিংহ )
৭. রুহুল আনাম চৌধুরী মিন্টু  ( কুমিল্লা/সিলেট )
৮. আনিস উদ্দিন আহমেদ সহীদ ( বরিশাল/খুলনা/পটুয়াখালী )
৯. মোঃ একরামুল হক ( রাজশাহী/যশোর/কুষ্টিয়া )
১০. মোঃ আব্দুর রহমান ( পাবনা/সিরাজগঞ্জ/রংপুর/দিনাজপুর )
আইনজীবীদের আস্থা আর ভালবাসার ঠিকানা বঙ্গবন্ধু আওয়ামী আইনজীবী পরিষদ।

‘বঙ্গবন্ধু আওয়ামী আইনজীবী পরিষদ সমর্থিত -সম্মিলিত আইনজীবী সমন্বয় পরিষদ’ কর্তৃক মনোনীত সাদা প্যানেলের নিরঙ্কুশ বিজয় বাংলাদেশ বার কাউন্সিল নির্বাচনে

ড. ওয়াজেদ মিয়ার স্মরণ ও রূহের মাগফিরাত কামনায় দোয়া মাহফিল –আওয়ামী ওলামা লীগ ।

৯ মে ২০২২ সোমবার বাংলাদেশ আওয়ামী ওলামা লীগ কেন্দ্রীয় কমিটির আয়োজনে হাইকোর্ট শরফ উদ্দিন চিশতী রাহঃ জামে মসজিদ এ বা’দ আসর বঙ্গবন্ধু ও খেখ ফজিলাতুন্নেছার জামাতা, মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার স্বামী, মুক্তিযুদ্ধের অন্যতম সংগঠক আন্তর্জাতিক পরমাণু বিজ্ঞানী ড. এম এ ওয়াজেদ মিয়া’র ১৩ তম মৃত্যুবার্ষিকী উপলক্ষ্যে তার স্মরণ ও রূহের মাগফিরাত কামনায় আলোচনা ও দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠিত।
বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় সংগ্রামী সাধারণ সম্পাদক হাফেজ মাওলানা আনোয়োর হোসেন জুয়েলের সঞ্চলনায় অনুষ্ঠানে ছিলেন, প্রধান অতিথি স্বাধীনতা পুরুস্কার প্রাপ্ত ইতিহাসবিদ সিরাজ উদ্দিন আহমেদ, প্রধান আলোচক, বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের ত্রাণ ও সমাজকল্যাণ কেন্দ্রীয় উপ-কমিটি’র সদস্য জননেতা বেলাল নূরী, বিশেষ অতিথি ওলামা লীগের কার্যকরি সভাপতি মাওলানা আনোয়ার শাহ, বাংলাদেশ তাঁতী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক খান নুর এ খোদা মন্জু, ওলামা লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক হাফেজ মাওলানা ইদ্রিচ আলম আল-কাদেরী, হাফেজ মাওলানা জাহাঙ্গীর আলম নূরী হুজুর প্রমূখ।

ড. ওয়াজেদ মিয়ার স্মরণ ও রূহের মাগফিরাত কামনায় দোয়া মাহফিল –আওয়ামী ওলামা লীগ ।

সাম্প্রদায়িকাতা নয় বঙ্গবন্ধু’র দেখানো পথেই ওলামা লীগ ১৫ এপ্রিল ২০২২ শুক্রবার ১৩ রমাদান সেগুনবাগিচা মধুরিমা রেস্তোরায় “মাহে রমাদানের শিক্ষা ও সংযম হউক মানবিক জীবন গড়ার পাথেয়” এই শিরোনামে বাংলাদেশ আওয়ামী ওলামা লীগ কেন্দ্রীয় কমিটির ইফতার মাহফিল অনুষ্ঠিত। সংগঠনের সভাপতি মুফতী মাসুম বিল্লাহ নাফিয়ীর সভাপতিত্বে সাধারণ সম্পাদক হাফেজ মাওলানা মুহাম্মদ আনোয়ার হোসেন জুয়েলের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠিত ইফতার মাহফিলে প্রধান অতিথি হিসেবে ছিলেন, বিশিষ্ট শিক্ষাবিদ হিন্দু বৌদ্ধ খ্রীষ্টান ঐক্য পরিষদের সভাপতি প্রফেসর ড, নিম চন্দ্র ভৌমিক, প্রধান আলোচক, বঙ্গবন্ধু শিক্ষা ও গবেষণা পরিষদের সাধারণ সম্পাদক প্রফেসর সিজারাজুল হক আলো, বিশেষ অতিথি বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের ত্রাণ ও সমাজকল্যাণ উপ-কমিটির সদস্য বেলাল নূরী, অনলাইন অ্যাক্টিভিস্ট ফোরামের সভাপতি কবীর চৌধিরী তন্ময়, কৃষক লীগের কেন্দ্রীয় ধর্ম বিষয়ক সম্পাদক আলমগীর হোসেন, প্রফেসর সিদ্দিকুর রহমান, ওলামা লীগের কার্যকরি সভাপতি মাওলানা আনোয়ার শাহ, সিনিয়র সহ-সহ-সভাপতি মুফতী আল্লামা খলিলুর রহমান জিহাদী, মুখপাত্র ক্বারী মাওলানা আসাদুজ্জামান, যুগ্ন সাধারণ সম্পাদক হাফেজ মাওলানা ইদ্রিছ আলম আলকাদেরী, মুফতী তৈয়বুর রহমান, বায়তুল ফজল মাদরাসার অধ্যক্ষ মাওলানা গোলাম মাওলা, মাওলানা মুহাম্মদ উল্লাহ মিরাজ,মাওলানা মিজানুর রহমান প্রমুখ। প্রধান অতিথি বলেন, সকল ধর্ম বর্ণের বাঙ্গালি জনগোষ্ঠীর আত্মত্যাগের মাধ্যমেই আমাদের স্বাধীনতা।

আর অসম্প্রদায়িক চেতনা নিয়েই সে স্বাধীনতার ডাক দিয়েছিলেন সর্বকালের শ্রেষ্ঠ বাঙ্গালি জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান। আমি যতটুকু জানি সাম্প্রদায়িকাতা নয় বঙ্গবন্ধু’র দেখানো পথেই ওলামা লীগ। আমি বিশ্বাস করি সম্প্রীতির পথে আমরা অটুটভাবে হাটলেই বিশ্ব মানবতার মা বঙ্গকন্যা মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বঙ্গবন্ধু’র স্বপ্নের সোনার বাংলা নির্মাণ করতে বেশী সময় লাগবেনা।

দেশ আজ উন্নয়নের মহাসড়কে। দ্রুত উন্নত দেশে রূপান্তরিত হওয়ার পথে বাংলাদেশ। এছাড়াও আমরা সকল ধর্মের প্রতি আমরা শ্রদ্ধাশীল। অতীতের ন্যায় আগামীতেও ওলামা লীগ আরো সাংগঠনিক শক্তি সঞ্চয় করে মুক্তিযুদ্ধের চেতনায় এগিয়ে যাবে। ইফতার মাহফিলে আমাদের অংশগ্রহণেই তা প্রমাণ করে। প্রফেসর জিরাজুল হক আলো বলেন, ওলামী লীগের কার্যক্রম শুধু রাজপথে আর ইফতার মাহফিলা সীমাবদ্ধ রাখলে চলবেনা।

প্রতিটি মাদরাসায় ওলামা লীগের কমিটি গঠন করতে হবে। মাদরাসার শিক্ষক ও ছাত্রদেরকে জাতির পিতার আদর্শে উদ্বুদ্ধ করতে হবে। মুক্তিযুদ্ধের চেতনার সাথে ইসলামের কোন সাংঘর্ষিকতা নেই সে বিষয়টি বুঝাতে হবে। বঙ্গবন্ধু ও আওয়ামী লীগ ইসলাম তথা ধর্মবিরোধী নয় ধর্মের স্বাধীনতায় বিশ্বাসী। অর্থাৎ ধর্ম যারযার বাংলাদেশ সবার। যারা ধর্মের নামে সাম্প্রদায়িকতা সৃষ্টির মাধ্যমে দেশের উন্নয়কে বাঁধাগ্রস্ত করতে চায় তাদেরকে রুখে দিতে হবে। ওলামা লীগকে এগিয়ে যেতে হবে অনেক দূর।

তাই ওলামা লীগকেই কার্যক্রমের মধ্য দিয়ে প্রমাণ করতে হবে আমরা বঙ্গবন্ধু’র অসম্প্রদায়িক চেতনায় বিশ্বাসী। তৃর্ণমূলে ওলামা লীগের চাহিদা রয়েছে। আমি প্রত্যাশা মাননীয় প্রধানমন্ত্রী সেই বিষয়টি বিবেচনা করে ওলামা লীগ তথা ওলামা লীগের মূল্যায়ন করবেন ইনশাআল্লাহ। এছাড়াও ইফতার মাহফিলে অন্যান্য অতিথিগণ বক্তব্য রাখেন।

ইফতার পূর্ব দোয়ায় শহীদ বীর মুক্তিযোদ্ধা ও শহীদ জাতির পিতা এবং জাতির পরিবার, জাতীয় চার নেতা, গ্রেনেড হামলায় নিহত নারী নেত্রী আইভি রহমান সহ সকল নিহতদের রূহের শান্তি কামনা করা হয়। তাছাড়াও দোয়ায় মাননীয় প্রধানমন্ত্রী সুস্বাস্থ্যসহ নিরাপদ দীর্ঘায়ু জীবন কামনা করে।

সাম্প্রদায়িকাতা নয় বঙ্গবন্ধু’র দেখানো পথেই ওলামা লীগ

মাদরাসা শিক্ষা ব্যবস্থায়েও বাংলা ভাষার চর্চা গৌণ : ওলামা লীগ স্টাফ করেসপন্ডেন্ট স্কুল-কলেজের পাশাপাশি মাদরাসা শিক্ষা ব্যবস্থায়েও বাংলা ভাষার চর্চা গৌণ বলে জানিয়েছেন বাংলাদেশ আওয়ামী ওলামা লীগের নেতারা৷ রবিবার (১৩ ফেব্রুয়ারি) জাতীয় মসজিদ বায়তুল মেকাররমে আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস উপলক্ষ্যে ভাষাশহীদ ও ভাষাযোদ্ধাদের জন্য বিশেষ দোয়ার পূর্বে বক্তারা এসব কথা বলেন। যোহর নামাজের পর ভাষাশহিদদের জন্য বিশেষ দোয়া করা হয়। ওলামা লীগের নেতারা বলেন, মাতৃভাষা আল্লাহ সোবহানাহু তা’য়ালার একটি নিয়ামত। ভাষা। ইসলামেও ভাষা শিক্ষা, ভাষার ব্যবহার ও মাতৃভাষায় ইসলাম চর্চা করার বেশ গুরুত্ব আরোপ করা হয়েছে। ১৯৫২ সালের ভাষা আন্দোলনের মূল লক্ষ্য সর্বস্তরে বাংলা ভাষার প্রবর্তন, তা আজও পূরণ হয়নি। সরকারি কাজকর্মে বাংলা চালু থাকলেও ব্যবসা-বাণিজ্য, উচ্চশিক্ষা, গবেষণাসহ নানা গুরুত্বপূর্ণ ক্ষেত্রে ইংরেজির প্রাধান্য লক্ষণীয়। ইংরেজি ভিনদেশী ভাষা। বাংলায় আইন প্রণীত হলেও উচ্চ আদালতে এখনো বাংলা চালু হয়নি। শিক্ষিত তরুণ-তরুণীদের একাংশ মাতৃভাষা বাংলার পরিবর্তে ইংরেজি রপ্ত করতেই বেশি আগ্রহী। শিশুদের শিক্ষাক্ষেত্রে ইংরেজি মাধ্যমের প্রসার ঘটে চলেছে, সাধারণ বিদ্যালয়েও বাংলা অবহেলিত। মাদরাসা শিক্ষা ব্যবস্থায়েও বাংলা ভাষার চর্চা গৌণ। ওলামা লীগের সভাপতি মুফতী মাসুম বিল্লাহ নাফিয়ী বলেন, ভাষাশহীদ ও ভাষাযোদ্ধারা আমাদের অন্তহীন প্রেরণার উৎস। মাতৃভাষার দাবিতে বাঙালি তরুণদের সেদিনের আত্মদান শুধু ভাষার অধিকার প্রতিষ্ঠার মধ্যে সীমাবদ্ধ থাকেনি, ক্রমেই একটি গণতান্ত্রিক ও ন্যায়ভিত্তিক আধুনিক রাষ্ট্রব্যবস্থার স্বপ্ন ও অঙ্গীকার দানা বেঁধেছিল। সে স্বপ্নই স্বাধীনতাসংগ্রাম, সশস্ত্র মুক্তিযুদ্ধসহ ইতিহাসের প্রতিটি গুরুত্বপূর্ণ পর্যায়ে আমাদের পথ দেখিয়েছে। ভাষা আন্দোলন আজ আন্তর্জাতিক অঙ্গনে স্বীকৃত। দিবসটি এখন আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবসও বটে। মাতৃভাষা বাংলার জন্য বাঙালির আত্মত্যাগের মহিমা ছড়িয়ে পড়েছে পৃথিবীর পরিমণ্ডলে। বিশ্বের প্রতিটি জনগোষ্ঠীর নিজ নিজ মাতৃভাষা সংরক্ষণ ও বিকাশের বিষয়টি তাদের রাজনৈতিক অধিকারের গুরুত্বপূর্ণ অংশ হিসেবে বিবেচিত। ওলামা লীগের সাধারণ সম্পাদক আনোয়ার হোসাইন জুয়েল বলেন, মাতৃভাষাযোদ্ধাদের একসাগর রক্তের মধ্য দিয়ে অর্জিত অমর একুশে ফেব্রুয়ারি। প্রাণপ্রিয় মাতৃভাষা বাংলাকে রাষ্ট্রীয় ভাষার মর্যাদায় প্রতিষ্ঠিত করার আন্দোলনে পাকিস্তানী স্বৈরাচারী সরকারের পুলিশের গুলিতে সেই দিন শহীদ হন সালাম, রফিক, জব্বার, বরকত ও শফিকসহ অনেকে। পরিতাপের বিষয় হলো আজ বিদেশী ভাষার আগ্রাসনে বাংলা ভাষার মর্যাদা রক্ষা হচ্ছে না। তাই সর্বস্তরে বাংলা ভাষা চালুর জন্য মহান ২১ ফেব্রুয়ারির ভাষা আন্দোলনের চেতনাকে সামাজিক আন্দোলনে রূপান্তরিত করতে হবে। আর তা করতে পারলেই সর্বক্ষেত্রে বাংলাভাষার ব্যবহার সুনিশ্চিত করা যাবে বলে আমরা বিশ্বাস করি। দোয়া ও মুনাজাত পরিচালনা করেন জাতীয় মসজিদের ইমাম মুফতী হাফেজ মাওলানা মুহিব উল্লাহ হিল বাকী। মুনাজাতে ভাষাশহীদ ও ভাষাযোদ্ধাদের রুহের মাগফিরাত কামনাসহ জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ও ১৫ আগষ্ট যারা শাহাদাৎ বরণ করেছেন তাদের এবং মহান মুক্তিযুদ্ধে শহীদ ও জাতীয় চার নেতারও রুহের মাগফিরা কামনা করা হয়। এছাড়াও মুনাজাতে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সুস্বাস্থ্য, দীর্ঘায়ু কামনার পাশাপাশি করা হয়। দোয়া মাহফিলে অংশগ্রহণ করেন, সাবেক সচিব সিরাজ উদ্দীন আহমেদ, জাতীয় গণতান্ত্রিক লীগের সভাপতি এম এ জলিল, বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের ত্রাণ ও সমাজকল্যাণ উপ-কমিটির সদস্য জননেতা বেলাল নূরী বাংলাদেশ কার্যকরী সভাপতি মাওলানা আনোয়ার শাহ, সিনিয়র সহ-, হাফেজ মাওলানা ইদ্রিচ আলম আল কাদেরী, মুফতী আব্দুল আলিম বিজয়নগরী, হাফেজ মাওলানা শামসুল আলম জাহাঙ্গীর নূরানী হুজুর, হাফেজ মাওলানা সাঈফুল ইসলাম, মাওলানা মোঃ আব্দুল মুবিন আখন্দ, হাফেজ মাওলানা মাহবুবুর রহনান, নাফি উদ্দিন উদয়, শাফি উদ্দিন বিনয় প্রমুুখ।

মাদরাসা শিক্ষা ব্যবস্থায়েও বাংলা ভাষার চর্চা গৌণ

সিনহা হত্যা: বরখাস্ত ওসি প্রদীপ, ইন্সপেক্টর লিয়াকতের মৃত্যুদণ্ড । ১৫ আসামির উপস্থিতিতে রায় ঘোষণা করেন বিচারক , ১৯ মাস পর চাঞ্চল্যকর এ মামলার রায় ঘোষণা হলো, পরিদর্শক লিয়াকতের গুলিতে নিহত হন মেজর (অব.) সিনহা ৩ এপিবিএন সদস্যসহ ৭ জনকে বেকসুর খালাস দেন আদালত ।

সিনহা হত্যা: বরখাস্ত ওসি প্রদীপ, ইন্সপেক্টর লিয়াকতের মৃত্যুদণ্ড ।

জালালাবাদ মাদরাসায় আওয়ামী লীগের সভাপতি প্রধানমন্ত্রী দেশরত্ন জননেত্রী শেখ হাসিনার সুস্বাস্থ্য ও দীর্ঘায়ু কামনা করে বিশেষ দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠিত হয়েছে ।  মাদরাসার আয়োজিত মাহফিলে সভাপতিত্ব ও দোয়া পরিচালনা করেন অত্র জালালাবাদ মাদরাসার প্রতিষ্ঠাতা দেশবরেণ্য হাফেজ বিশিষ্ট ইসলামিক চিন্তাবিদ আলহাজ্ব হাফেজ মুহাম্মদ তৈয়ব, প্রধান অতিথি হিসেবে অংশগ্রহণ করেন বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের ধর্ম বিষয়ক উপ-কমিটির সদস্য ওলামা লীগের কেন্দ্রীয় সভাপতি মুফতী মাসুম বিল্লাহ নাফিয়ী, ওলামা লীগের কেন্দ্রীয় নেতা হাফেজ মাওলানা ইদ্রিস, মাদরাসার মুহতামিম মাওলানা মুহাম্মদ মুশতাক, চট্রগ্রাম ওলামা লীগ নেতা মাওলানা আব্দুর রহীম ও হাফেজ মাওলানা নেজাম প্রমুখ। দোয়া পূর্ব মাহফিলে প্রধান অতিথি মুফতী মাসুম বিল্লাহ নাফিয়ী বলেন, আপনারা আজ মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনার জন্য দোয়া-মাহফিলের আয়োজন করেছেন এতে আমি অনেক আনন্দিত। কেননা আপনারা দোয়া মাহফিলের মাধ্যমে কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করছেন। বঙ্গকন্যা দেশরত্ন শেখ হাসিনা কওমী মাদরাসার শিক্ষা সনদের এমএ সমমানের স্বীকৃতি দিয়ে আপনাদেরকে যে সম্মানিত করে মর্যাদার আসনে বসিয়েছেন তারই কৃতজ্ঞতায় এই দোয়া-মাহফিল। তিনি আরও বলেন, প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনা ইসলামের মূল শিক্ষার প্রতি আন্তরিক এবং শ্রদ্ধাশীল। তিনি ইতিমধ্যে কওমী সনদের স্বীকৃতি, আরবী বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিষ্ঠা ও পাঁচশত ৬০টি মডেল মসজিদ প্রতিষ্ঠাসহ পঁচাত্তর হাজার কোরআন শিক্ষা কেন্দ্র স্থাপন করে তা প্রমাণ করেছেন। মুফতী মাসুম বিল্লাহ নাফিয়ী আরও বলেন, জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানও ইসলামের প্রচার-প্রসারের জন্য ইসলামিক ফাউন্ডেশন প্রতিষ্ঠাসহ ইসলামের খেদমতে বহুমুখী অবদান রেখেছেন। কৃতজ্ঞতার দোয়া-মাহফিল চার দালানের ভিতর সীমাবদ্ধ রাখলে চলবেনা। শেখ হাসিনা ইসলামের জন্য বহুমুখী যে খেদমত করে যাচ্ছে তা মসজিদ মাদরাসার বাহিরেও ওয়াজ মাহফিলের মাধ্যমে জনগণের মাঝে তুলে ধরবেন। তাহলেই কৃতজ্ঞতার প্রকৃত হক আদায় হবে বলে আমি বিশ্বাস করি। আওয়ামী লীগের ধর্ম উপকমিটির সদস্য বলেন, ইসলামের অপব্যাখা করে একশ্রেণীর ক্ষমতালোভী স্বাধীনতাবিরোধী চক্র আওয়ামী লীগ তথা সরকারের বিরুদ্ধে নানামুখী ষড়যন্ত্রে লিপ্ত। তারা তাদের চক্রান্ত বাস্তবায়নে সরলমনা আলেম-ওলামাদেরকে মিথ্যাচারের মাধ্যমে উস্কানি দিয়ে বিভ্রান্ত করে অতীতের ন্যায় মাঠে নামানোর অপচেষ্টাও করতে পারে। আশা করি আপনারা সে চক্রান্তে পা না দিয়ে চলমান উন্নয়ন অগ্রগতির ধারা অব্যাহত রাখার স্বার্থে ও দেশের শান্তি-সম্প্রীতি রক্ষায় নাগরিকের দায়িত্ববোধে সজাগ থেকে দায়িত্ব পালন করে যাবেন ইনশাআল্লাহ। ধর্ম যারযার রাষ্ট্র সবার সম্মানিত আলেম সমাজকে এই বিষয়টিও মাথায় রাখতে হবে। আমরা চাই আগামীতে বীর চট্রলায় সর্বজনশ্রদ্ধীয় হুজুর হাফেজ তৈয়ব সাহেবের নেতৃত্ব দেশপ্রেমিক আলেম সমাজের এক অটুট ঐক্য গড়ুক। যে নেতৃত্বের মাধ্যমে গড়ে উঠবে মুক্তিযুদ্ধের চেতনায় উদ্বুদ্ধ তরুণ আলেম সমাজের বহর। যারা অন্যায়ের প্রতিবাদে ভূমিকা রাখবে সাইয়্যেদানা উমর ইবনে খাত্তাব রাঃ ন্যায় আর অধিকার আদায়ে ভুমিকা রাখবে বিশ্বে শোষিত গণমানুষের নেতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের মতো। হাফেজ মুহাম্মদ তৈয়ব দোয়ায় আল্লাহ সোবহানাহু তা’য়ালার দরবারে প্রধানমন্ত্রী’র সুস্বাস্থ্য ও দীর্ঘায়ু কামনা ছাড়াও সকল শহীদ মুক্তিযুদ্ধ, বঙ্গবন্ধুসহ পঁচাত্তরের শাহাদাতবরণ কারী সকল শহীদ ও জাতীয় চারনেতা এবং একুশে আগস্ট গ্রেনেড হামলায় নিহত নারী নেত্রী আইভী রহমানসহ সকল শহীদদের রুহের শান্তি কামনা করেন। এছাড়াও মুনীজাতে দেশের শান্তি, উন্নয়ন-অগ্রগতিকে স্মরণ করে প্রধানমন্ত্রীসহ সরকারের সকল দায়িত্বশীল ব্যক্তিবর্গের কথা উল্লেখ করা হয়।

চট্রগ্রামের জালালাবাদ মাদরাসায় প্রধানমন্ত্রীর জন্য বিশেষ দোয়া

বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের উপদেষ্ঠা মন্ডলীর সদস্য, ফেনী জেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক, ফেনী-২ আসন থেকে ৩ বার নির্বাচিত সংসদ সদস্য, বীর মুক্তিযোদ্ধা জয়নাল আবেদীন হাজারী গতকাল বিকেল ৫ঃ৩০ মিনিটে রাজধানীর ল্যাব এইড হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় ইন্তেকাল করেছেন, ইন্না লিল্লাহি ওয়া ইন্না ইলাইহি রাজিউন। মরহুমের রুহের মাগফেরাত ও শোকসন্তপ্ত পরিবারের প্রতি বিএম ২৪ টিভির পক্ষ থেকে গভীর সমবেদনা জানাচ্ছি।

ফেনী-২ আসন থেকে ৩ বার নির্বাচিত সংসদ সদস্য, বীর মুক্তিযোদ্ধা জয়নাল আবেদীন হাজারী ইন্তেকাল করেছেন

প্রস্তুত ঢাকা নগর পরিবহন

গণপরিবহনে বিশৃঙ্খলা দূর করতে বাস রুট রেশনালাইজেশন কার্যক্রমের অংশ হিসেবে চালু হচ্ছে ঢাকা নগর পরিবহন। রোববার (২৬ ডিসেম্বর) রাজধানীর মোহাম্মদপুর এলাকা থেকে এর উদ্বোধন করা হবে। কেরানীগঞ্জের ঘাটারচর থেকে কাঁচপুর পর্যন্ত প্রায় ২১ কিলোমিটারের রুটে বিআরটিসির বাসের পাশাপাশি সবুজ রঙের বাস নিয়ে ঢাকা নগর পরিবহন যাত্রা শুরু করছে। এরইমধ্যে বাসগুলো প্রস্তুত করা হয়েছে। ফুল দিয়ে সাজানোও হয়েছে। বাসগুলো যেখানে রাখা হয়েছে, তার পাশেই তৈরি করা হয়েছে বিশাল উদ্বোধনী মঞ্চ। জানা গেছে, ২১ কিলোমিটারের এ রুটে ঢাকা নগর পরিবহনের ৫০টি বাস নিয়ে আনুষ্ঠানিকভাবে রেশনালাইজেশন কার্যক্রম শুরু হবে। এ রুটে কিলোমিটারপ্রতি ভাড়া পড়বে দুই টাকা ২০ পয়সা। জানা গেছে, প্রথমে ৫০টি বাস নিয়ে যাত্রা শুরু হলেও কিছু দিনের মধ্যে এ রুটে মোট ১০০টি বাস চলাচল করবে।

প্রস্তুত ঢাকা নগর পরিবহন

https://www.facebook.com/bm24tvofficialpage